বন অধিদপ্তর গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১৬ অক্টোবর ২০১৭

ফরেস্ট্রি সায়েন্স এন্ড টেকনোলজি ইনস্টিটিউট, রাজশাহী

 

পরিচিতি ঃ

১৯৮৫ সালের অক্টোবর মাসে একটি ভাড়া বাড়িতে সামাজিক বন বিদ্যালয়, রাজশাহীর কার্যক্রম শুরু হয়। পরবর্তীতে ১৯৮৭ সালের জুলাই মাসে ৩.৫৩ একর জমির উপর নিজস্ব কমপ্লেক্স স্থানান্তরিত হয়। কমপ্লেক্সটিতে একটি দোতলা প্রশাসনিক ভবন, ৪৮ জন প্রশিক্ষণার্থীর বাস উপযোগী একটি তিনতলা ডরমেটরী এবং অফিস স্টাফদের জন্য তিনটি আবাসিক ভবন রয়েছে। এছাড়া অত্র ক্যাম্পাসে রাজশাহী বন বিভাগের নিয়ন্ত্রণাধীন একটি বিশ্রামাগার রয়েছে। পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয়ের পত্র নং পবম/বন-শাখা-৩/বন-২৭/০৫/৩৫৫ তাং-০৬/০৫/০৯ইং মূলে সামাজিক বন বিদ্যালয়, রাজশাহীর নাম পরিবর্তন করে ‘‘ফরেস্ট্রি সায়েন্স এন্ড টেকনোলজি ইনস্টিটিউট, রাজশাহী” করা হয়েছে। এই প্রতিষ্ঠানে ২৮ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীর পদ রয়েছে। কিন্তু বর্তমানে নিয়োজিত জনবলের সংখ্যা মোট ২১ জন। বর্তমানে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান হতে মোট ১১ জন খন্ডকালীন প্রশিক্ষক বিভিন্ন বিষয়ে ক্লাস নিয়ে থাকেন। প্রধান বন সংরক্ষক, বাংলাদেশ বন বিভাগ কর্তৃক প্রতি বছরের প্রথম দিকে ডিপ্লোমা ইন ফরেস্ট্রি (ইন সার্ভিস) কোর্সের জন্য প্রশিক্ষণার্থী মনোনয়ন প্রদান করে থাকেন।

কর্মকান্ড ঃ

এখানে ফরেস্টার, ফরেস্ট গার্ড ও বাগান মালীদের ইন সার্ভিস প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়। বর্তমানে এখানে ফরেস্টারদের ২ বছর মেয়াদী ‘‘ডিপ্লোমা-ইন-ফরেস্ট্রি” (ইন সার্ভিস) কোর্স চালু আছে। কারিগরি শিক্ষা বোর্ড এ কোর্সটির পরীক্ষা পদ্ধতি ও কারিকুলাম নিয়ন্ত্রণ করে। এটি সেমিষ্টার ভিত্তিক কোর্স এবং ৬ (ছয়) মাসে একটি সেমিষ্টার শেষ হয়। সেমিষ্টারের মাঝামাঝিতে মধ্য পর্ব পরীক্ষা হয় এবং সেমিষ্টারের শেষে পর্ব সমাপনী পরীক্ষা হয়। প্রথম বর্ষে প্রশিক্ষণার্থীদের যোগদান করার সাথে সাথে পুলিশ একাডেমী সারদাতে ১০ সপ্তাহ মেয়াদী রাইফেল ট্রেনিং, প্রাথমিক চিকিৎসা ও ম্যারাথন দৌড়, বিভিন্ন আইন-কানুন যেমন বন আইন, দন্ডবিধি, ফৌজদারী কার্যবিধি, অস্ত্র আইন, মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন, শুল্ক আইন, বন্যপ্রাণী  আইন ও বিভিন্ন বিধি বিধান সম্পর্কে নির্ধারিত কোর্স বাধ্যতামূলকভাবে শেষ করতে হয়। এখানে প্রতিদিন সকালে-বিকালে শরীরচর্চা ও খেলাধূলা বাধ্যতামূলক। বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের পাঠ্যক্রম বাস্তবায়ন প্রবিধান-২০০৫ অনুযায়ী ডিপ্লোমা-ইন-ফরেস্ট্রি (ইন সার্ভিস) কোর্সটি পরিচালিত হয়ে আসছে। এই কোর্সে ৪টি সেমিস্টারে ৩৫টি বিষয়ে মোট ৫৬০০ নম্বরের পরীক্ষায় প্রশিক্ষণার্থীদেরকে অবতীর্ণ হতে হয়। 

 

                      

     সারদা পুলিশ ট্রেনিং একাডেমীতে সমাপনী কোর্স অনুষ্ঠান                          সারদা পুলিশ ট্রেনিং একাডেমীতে সমাপনী অনুষ্ঠানে সনদপত্র বিতরণ

                                                                                                                             

 

 

এখানে ১৯৮৫ সাল হতে ২০১২-১৩ পর্যন্ত ৪৬৭ জন ফরেস্টারকে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে এবং প্রতিবছর ২টি ব্যাচে মোট ৬০ জন করে ৪৫০ জন ফরেস্টার ফরেস্টার ডিপ্লামা ইন ফরেস্ট্রি বিষয়ে ইন সার্ভিস প্রশিক্ষণ গ্রহণ করছে। এছাড়াও এখানে ৩৯৪ জন ফরেস্টার ও এনজিও কর্মীদের ১০ দিনের রিফ্রেসার্স কোর্স এবং ৪৩৯ জন বাগান মালীদের প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে।

ফরেস্ট্রি  সায়েন্স এন্ড টেকনোলজি ইনস্টিটিউট, রাজশাহী থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বিবরণ নিম্নের ছকে প্রদান করা হলো ঃ

 

ক্রমিক নং

প্রশিক্ষণের নাম

সন

প্রশিক্ষণার্থীর সংখ্যা

১।

ফরেস্টারদের ২ বছর মেয়াদী ডিপ্লোমা ইন ফরেস্ট্রি (ইন সার্ভিস)

১৯৮৫-২০১৬

৪৬৭

২।

১০ দিন মেয়াদী ফরেস্টার/প্লানটেশন সহকারী/এনজিও স্টাফ প্রশিক্ষণ

১৯৯৯-২০০৫

১০০

৩।

বাগান মালীদের সামাজিক বনায়ন প্রশিক্ষণ কোর্স

২০০১-২০০৩

৪৫৯

মোট

১০২৬

 

সম্ভাবনা ঃ

‘‘ডিপ্লোমা-ইন-ফরেস্ট্রি” কোর্সটি সম্পূর্ণ আবাসিক। পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধি ও পদোন্নতির জন্য ডিপ্লোমা-ইন-ফরেস্ট্রি কোর্সটি অপরিহার্য। উত্তরবঙ্গে এই ধরণের ইনস্টিটিউট আর নাই। পরিবেশ সংরক্ষণ ও বনায়ন  কার্যক্রমকে গতিশীল করার স্বার্থে উত্তরবঙ্গের এ প্রতিষ্টানকে যুগোপযোগী করে তোলা প্রয়োজন। মূল পরিকল্পনা অনুযায়ী কমপ্লেক্সটির নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করা হলে এখানে অধিক সংখ্যক ফরেস্টারকে প্রশিক্ষণ প্রদান করা সম্ভব হবে, যা বন সংরক্ষণ. সম্প্রসারণ ও উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। 

 

 


Share with :